শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ১২:৫৬ অপরাহ্ন

শিরোনাম ::
সিলেটে ২৪ ঘণ্টায় ২০৩ মিলিমিটার বর্ষণ সিলেটে আবারও বন্যার শঙ্কা, প্রস্তুত ৫৫১ আশ্রয় কেন্দ্র সিলেটে ২২ দিনে ১৫ কোটি টাকার সাদা পাথর লুট সিলেটসহ ছয় অঞ্চলে ৬০ কি.মি বেগে ঝড় হতে পারে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য সাড়ে ১১ হাজার কোটি টাকার বাজেট অনুমোদন সিলেটে অবিবাহিত পুরুষের হার সবচেয়ে বেশি সিলেট ওসমানী হাসপাতাল ‘কক্লিয়ার ইমপ্লান্ট’ কার্যক্রমে শতভাগ সফলতা অর্জন বিয়ানীবাজারে পুলিশের অভিযানে ৮০ বস্তা চিনি সহ গ্রেফতার ২ সিলেট এসে হঠাৎ অসুস্থ সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী, হেলিকপ্টারে ঢাকায় নেওয়া হয়েছে সিলেটে এসএসসির খাতা চ্যালেঞ্জ করে ফেল থেকে পাস করলেন ৩৫ শিক্ষার্থী সিলেটে বিপুল পরিমান চোরাই মোবাইলসহ গ্রেফতার ৬ সৌদিতে হজে গিয়ে ১৫ বাংলাদেশির মৃত্যু টিলাধসে স্বপরিবারে যুবদল নেতার মৃত্যুতে সিলেট যুবদলের শোক টিকটকার প্রিন্স মামুন গ্রেফতার মসজিদে আজানরত অবস্থায় এক মুসল্লির মৃত্যু




কম দামে মরিচ বিক্রি নিয়ে দ্বন্দ্বে সবজি বিক্রেতা খুন

image 701498 1690638871 - BD Sylhet News




বিডিসিলেট ডেস্ক : বরিশাল নগরীর কাশিপুর বাজারে কম দামে মরিচ বিক্রি নিয়ে দ্বন্দ্বে ছুরিকাঘাতে মো. কামাল হোসেন (৩৮) নামে এক সবজি বিক্রেতা খুন হয়েছেন। এছাড়া আরও ৫ জন ছুরিকাঘাতে আহত হয়েছেন।

শনিবার সকালে এ ঘটনা ঘটেছে বলে জানান এয়ারপোর্ট থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. লোকমান হোসেন। ঘটনার পর ছুরিকাঘাতকারী মরিচ বিক্রেতাকে আটক করেছে পুলিশ।

নিহত কামাল হোসেন নগরীর ২৮ নম্বর ওয়ার্ড কাশিপুরের সৈয়দপুর এলাকার এসকান্দার সর্দারের ছেলে।

আহতরা হলেন- কাশিপুরের তিনু মাঝির ছেলে মো. আলমগীর হোসেন (৪০), তার ভাই মো. জাহাঙ্গীর হোসেন (৪৫) ও অপর ভাই মো. জয়নাল আবেদীন (৩৫) এবং একই এলাকার মৃত মো. ইয়াকুব আলীর ছেলে মো. আব্দুল মালেক (৬০)।

আটক ছুরিকাঘাতকারী মো. সোহেল রানা (৫০) নগরীর কাশিপুর ইছাকাঠি এলাকার সোনাবুদ্দিনের ছেলে।

নগরীর ২৯ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. ফরিদ হোসেন জানান, ভ্যানগাড়িতে করে কমদামে সবজি ও কাঁচা মরিচ বিক্রি করছিলেন সোহেল রানা। বাজারের ব্যবসায়ীরা এর প্রতিবাদ করে। এ নিয়ে মারামারি ও ছুরিকাঘাতে ৬-৭ জন আহত হয়েছেন। এর মধ্যে একজনের মৃত্যু হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শী মো. শহিদ জানিয়েছেন, কাশিপুর বাজারে ব্যবসায়ীরা ২৫০ থেকে ৩০০ টাকা কেজি দরে মরিচ বিক্রি করেন। সোহেল রানা বাজারের সামনে এসে মাইকিং করে ১২০ টাকা কেজিদরে মরিচ বিক্রি করেন। তখন নিহত কামালসহ আহতরা এসে ওই দামে মরিচ বিক্রি করতে নিষেধ করে। কিন্তু সোহেল রানা রাজি হয়নি। এতে তাকে বাজারের সবজি বিক্রেতা কয়েকজন মিলে বেধড়ক মারধর করে।

এক পর্যায়ে সোহেল রানা বস্তা কাটা ছুরি দিয়ে তাদের উপর চড়াও হয়। তার এলোপাথাড়ি ছুরিকাঘাতে নিহত কামালসহ চারজন জখম হয়। তাদের হাসপাতালে নেওয়ার পর চিকিৎসক কামাল হোসেনকে মৃত ঘোষণা করা হয়।

এ ব্যাপারে এয়ারপোর্ট থানার পরিদর্শক (তদন্ত) লোকমান হোসেন বলেন, নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। ছুরিকাঘাতকারী সেনা সদস্যও আহত অবস্থায় পুলিশ প্রহরায় চিকিৎসাধীন রয়েছে। অভিযোগ পাওয়ার পর পরবর্তী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

শেয়ার করুন...











বিডি সিলেট নিউজ মিডিয়া গ্রুপ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। © ২০২৪
Design & Developed BY Cloud Service BD