রবিবার, ২১ জুলাই ২০২৪, ০৫:৩৬ অপরাহ্ন

শিরোনাম ::
২১, ২৩ ও ২৫ জুলাইয়ের সব বোর্ডের এইচএসসি পরীক্ষা স্থগিত কোটা সংস্কারের ব্যাপারে নীতিগতভাবে আমরা একমত: আইনমন্ত্রী ফেসবুকে বিভিন্ন ধরনের গুজব ছড়ানো হচ্ছে, গুজবে কান না দেয়ার অনুরোধ পুলিশের আজ আমেরিকান দূতাবাস ও সকল ভারতীয় ভিসা সেন্টার বন্ধ ঘোষণা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের তথ্য যাচাই করে সিদ্ধান্ত নেয়ার আহ্বান জানালেন পলক সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের জরুরি সভা: কর্মসূচি ঘোষণা আগামীকাল সারা দেশে ‘কমপ্লিট শাটডাউন’ ঘোষণা জাতির উদ্দেশ্যে ভাষণে প্রধানমন্ত্রী যা বললেন শাবিপ্রবির হলে তল্লাশী, আগ্নেয়াস্ত্র ও মদের বোতল উদ্ধার ফেসবুকে পোস্ট দিয়ে ৪ ছাত্রলীগ নেতার পদত্যাগ সিলেটে আওয়ামী লীগের উদ্যোগে গায়েবানা জানাজা অনুষ্ঠিত সন্ধ্যায় জাতির উদ্দেশে ভাষণ দেবেন প্রধানমন্ত্রী সিলেটে সড়ক দু-র্ঘ’ট’না’য় ২ কিশোর নি-হ-ত কারো মা-বাবার বুক এভাবে খালি হতে পারে না: শাকিব খান শাহজালাল বিশ্ববিদ্যালয়ে আজীবন নিষিদ্ধ অধ্যাপক জাফর ইকবাল




ক্লুলেস হত্যাকাণ্ড: আড়াই বছর পর রহস্য উন্মোচন, ২ যুবক গ্রেফতার

5975 - BD Sylhet News




সিলেটে আড়াই বছর পর অজ্ঞাত কিশোর (১৫) হত্যার রহস্য উন্মোচন পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগ-সিআইডি। রহস্য উন্মোচনের পাশাপাশি খুনের ঘটনায় ব্যবহৃত দা উদ্ধার এবং জড়িত দুই যুবককে গ্রেফতার করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২৭ জুলাই) বেলা ২টার দিকে তাদের নিয়ে সংবাদ সম্মেলন করেন সিআইডি সিলেট জোনের পুলিশ সুপার সুজ্ঞান চাকমা।

তিনি জানান, ২০২১ সালের ২৩ জানুয়ারি বিকেল ৩ টা ১০ মিনিটের দিকে সিলেটের শাহপরান (র.) এলাকা উত্তর দলইছড়া কাউতলা এলাকায় মোখলেছুর রহমানের বাগানের ছড়া থেকে অজ্ঞাত (১৫) কিশোরের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়। জনৈক মহিলা মোখলেছুর রহমানের কেয়ারটেকার মামলার বাদি ফয়েজ আহমদকে জানালে তিনি বাগান মালিক ও স্থানীয় খাদিমপাড়া ইউপির সাবেক সদস্য বদরুল ইসলাম আজাদকে ফোনে জানান।খবর পেয়ে পুলিশ মরদেহ উদ্ধার করা হয়। সুরতহালের বর্ণনামতে, উদ্ধারকালে মরদেহের মাথা নীচের দিকে, পা উপরের দিকে, দেহের অর্ধেকাংশ পানিতে ও অর্ধেকাংশ শুকনো স্থানে রাখা অবস্থায় ছিল।

এ ঘটনায় ২০২১ সালের ২৪ জানুয়ারি বাড়ির কেয়ারটেকার ফয়েজ আহমদকে বাদি করে একটি হত্যা মামলা (২৭(১)’২১) নেয় এসএমপির শাহপরান (র.) থানা পুলিশ।

সিআইডির এসপি সুজ্ঞান চাকমা বলেন, মামলাটি ক্লুলেস ছিল। দুই তদন্ত কর্মকর্তার হাত বদলের পর মামলার তদন্তের দায়িত্ব পায় সিআইডি। ২০২২ সালের ২৭ জুলাই মামলাটি তদন্তের দায়িত্ব দেই সিআইডির পরিদর্শক মুহাম্মদ শামসুল হাবিবকে।

তৃতীয় তদন্তকারী কর্মকর্তা হিসেবে শামসুল হাবিবের নেতৃত্বে সিআইডির টিম প্রথমে নিহত অজ্ঞাত কিশোরের পরিচয় নিশ্চিত হন। নিহতের পিতা নগরের ঘাসিটুলার মৃত ধনু মিয়ার ছেলে মো. সেলিম ছবি দেখে তার ছেলে শাহরিয়ার ওরফে শাকারিয়ার (১৫) মরদেহ সনাক্ত করেন এবং ডিএনএ টেস্টের মাধ্যমে নিশ্চিত হন।

এরপর ঘটনায় গ্রেফতারকৃতরা হলেন, চাঁদপুর জেলার মতলব উত্তর থানাধীন সানকিভাঙ্গা গ্রামের আব্দুল কাদিরের ছেলে ও নগরের ঘাসিটুলা ৭৫ নং বাসার বাসিন্দা সেলিম আহমদকে (২১) ও সুনামগঞ্জের ধর্মপাশা উপজেলার জয়শ্রী গ্রামের আবুল হোসেনের ছেলে আসানুর (১৭)।

বুধবার (২৬ জুলাই) রাত সোয়া ৯টার দিকে নগরের ঘাসিটুলা ৭৫ নং বাসার সামনে থেকে সেলিম আহমদকে এবং রাত ৯টার দিকে কাজিরবাজার এলাকা থেকে গ্রেফতার দেখানো হয়। এছাড়া হত্যায় ব্যবহৃত দা ঘটনাস্থলে পুকুর সেচকালে পেয়ে সংরক্ষণে রেখেছিলেন মামলার বাদি। পরে আসামিদের সনাক্তমতে সেটি আলামত হিসেবে সংগ্রহ করে পুলিশ।

গ্রেফতারকৃতদের জিজ্ঞাসাবাদের বরাত দিয়ে এসপি সুজ্ঞান চাকমা আরো বলেন,নিহতের পরিচয় সনাক্ত করে খুনের মুটিভ উদঘাটনে নেমে এ দুই যুবককে গ্রেফতার করি। মূলত আসামিরা একত্রে চলাফেরা ও মাদক সেবনে করতো। এরই জের ধরে শাহরিয়ারকে একটি সিএনজি অটোরিকশাযোগে ৬ জন ঘটনাস্থল দলইপাড়া এলাকায় নিয়ে যায়। সেখানে প্রথমে চাকু দিয়ে আঘাত করে। এরপর গ্রেফতারকৃত সেলিমের দা দিয়ে মাথা, বুকে, পেটে, পিঠে কুপিয়ে ও একধিক ছুরিকাঘাত করে নাড়িভুড়ি বের হয়ে যায়। আটকের পর পরই যখন স্থানীয় জনতা জিজ্ঞাসা করছিলো তাদের কেনো আটক করলেন, তখন তাদেরকেই বলা হয়, তোমরা বলো, কেনো তোমাদের আটক করা হয়েছে? তখন জনসম্মুখে তারা খুনের ঘটনা অকপটে স্বীকার করে এবং ফোনে লাউড স্পীকারের মাধ্যমে সেটি তদন্ত কর্মকর্তা আমাকেও শুনিয়েছেন। এছাড়া আসামিদের তথ্যমতে ঘটনাস্থলে পুকুরে আলামত খুঁজতে স্থানীয় জামাল আহমদ সিআইডির টিমকে বলেন, পুকুর সেচকালে একটি দা পেয়েছেন। তখন আসামি সেলিম দা সনাক্ত করে এটি তার বলে স্বীকার করে। এই দা দিয়ে কুপিয়েছিল বলেও জানায়। মূলত শাহরিয়ার উগ্র ছিল, এরআগে সহপাঠিদের কয়েকজনকে নানা কারণে ছুরিকাঘাত করে। যে কারণে ছোটখাটো দোষের জন্য পূর্ব পরিকল্পিতভাবে শাহরিয়ারকে হত্যা করে।এছাড়া হত্যাকান্ডে জড়িত অপর ৩ আসামিকে গ্রেফতারে অভিযান অব্যাহত আছে বলেও জানান তিনি।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা সিআইডির পরিদর্শক মুহাম্মদ শামসুল হাবিব বলেন, খুনের ঘটনায় জড়িতদের বিকেলে আদালতে হাজির করা হয়েছে। তারা স্বেচ্ছায় ঘটনার দোষ স্বীকার করে জবানবন্দি দিচ্ছেন।

শেয়ার করুন...











বিডি সিলেট নিউজ মিডিয়া গ্রুপ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। © ২০২৪
Design & Developed BY Cloud Service BD