শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ১১:০০ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম ::
সিলেটে ২৪ ঘণ্টায় ২০৩ মিলিমিটার বর্ষণ সিলেটে আবারও বন্যার শঙ্কা, প্রস্তুত ৫৫১ আশ্রয় কেন্দ্র সিলেটে ২২ দিনে ১৫ কোটি টাকার সাদা পাথর লুট সিলেটসহ ছয় অঞ্চলে ৬০ কি.মি বেগে ঝড় হতে পারে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য সাড়ে ১১ হাজার কোটি টাকার বাজেট অনুমোদন সিলেটে অবিবাহিত পুরুষের হার সবচেয়ে বেশি সিলেট ওসমানী হাসপাতাল ‘কক্লিয়ার ইমপ্লান্ট’ কার্যক্রমে শতভাগ সফলতা অর্জন বিয়ানীবাজারে পুলিশের অভিযানে ৮০ বস্তা চিনি সহ গ্রেফতার ২ সিলেট এসে হঠাৎ অসুস্থ সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী, হেলিকপ্টারে ঢাকায় নেওয়া হয়েছে সিলেটে এসএসসির খাতা চ্যালেঞ্জ করে ফেল থেকে পাস করলেন ৩৫ শিক্ষার্থী সিলেটে বিপুল পরিমান চোরাই মোবাইলসহ গ্রেফতার ৬ সৌদিতে হজে গিয়ে ১৫ বাংলাদেশির মৃত্যু টিলাধসে স্বপরিবারে যুবদল নেতার মৃত্যুতে সিলেট যুবদলের শোক টিকটকার প্রিন্স মামুন গ্রেফতার মসজিদে আজানরত অবস্থায় এক মুসল্লির মৃত্যু




সেই দুই চিকিৎসকের জামিন, বেসরকারি হাসপাতালে চেম্বার ও অপারেশন চলবে

Screenshot 20230718 005853 Gallery - BD Sylhet News




বিডি সিলেট ডেস্ক:: রাজধানীর গ্রিন রোডে অবস্থিত সেন্ট্রাল হসপিটালে ভুল চিকিৎসায় নবজাতক ও মায়ের মৃত্যুর ঘটনায় দায়ের করা মামলায় গ্রেপ্তার দুই চিকিৎসক ডা. মুনা সাহা  ও ডা. শাহজাদী মুস্তার্শিদা সুলতানার জামিন মঞ্জুর করেছেন আদালত।

মঙ্গলবার (১৮ জুলাই) এই দুই চিকিৎসকের পক্ষে তাদের আইনজীবী জামিন চেয়ে আবেদন করেন। অন্যদিকে রাষ্ট্রপক্ষ জামিনের বিরোধিতা করেন। উভয় পক্ষের শুনানি শেষে ঢাকার অতিরিক্ত চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট সুলতান সোহাগ উদ্দিনের আদালত তাদের জামিন আদেশ দেন।

আদালতে ধানমন্ডি থানার সাধারণ নিবন্ধন কর্মকর্তা মাহফুজুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

গত ১৫ জুন আদালত তাদেরকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন। ওইদিন আসামিরা স্বেচ্ছায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিতে সম্মত হওয়ায় তা রেকর্ড করার আবেদন করেন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ধানমন্ডি থানার পরিদর্শক (নিরস্ত্র) রাসেল। আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আফনান সুমীর আদালত আসামি শাহজাদীর ও ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট ফারাহ দিবা ছন্দার আদালত আসামি মুনার জবানবন্দি রেকর্ড করেন।

প্রসঙ্গত, সেন্ট্রাল হসপিটালের অধ্যাপক ডা. সংযুক্তা সাহার (গাইনি) অধীনে গত ৯ জুন ভর্তি হয়েছিলেন মাহাবুবা রহমান আঁখি। কিন্তু সেদিন ডা. সংযুক্তা হাসপাতালেই ছিলেন না। পরে তার দুই সহযোগী চিকিৎসক আঁখির ডেলিভারি করানোর চেষ্টা করেন। কিন্তু জটিলতা দেখা দেওয়ায় নবজাতককে এনআইসিইউতে রাখা হয়। একইসঙ্গে আঁখির অবস্থার অবনতি হলে তাকে ল্যাবএইড হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়। পরে ১০ জুন বিকেলে আঁখির নবজাতক সন্তান মারা যায়।

এ ঘটনায় আঁখির স্বামী ইয়াকুব আলী ধানমন্ডি থানায় ‘অবহেলাজনিত মৃত্যু’র একটি মামলা দায়ের করেন।মামলায় ডা. শাহজাদী মুস্তার্শিদা সুলতানা, ডা. মুনা সাহা, ডা. মিলি, সহকারী জমির, এহসান ও হাসপাতালের ম্যানেজার পারভেজকে আসামি করা হয়। এছাড়াও অজ্ঞাতপরিচয় আরও কয়েকজনকে আসামি করা হয়েছে। মামলা দায়েরের পর ১৫ জুন রাতে ডা. শাহজাদী ও ডা. মুনা সাহাকে হাসপাতাল থেকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। ১৮ জুন দুপুর ১টা ৪৩ মিনিটে ল্যাবএইড হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান মাহবুবা রহমান আঁখিও।

শেয়ার করুন...











বিডি সিলেট নিউজ মিডিয়া গ্রুপ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। © ২০২৪
Design & Developed BY Cloud Service BD