শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ১২:২৫ অপরাহ্ন

শিরোনাম ::
সিলেটে ২৪ ঘণ্টায় ২০৩ মিলিমিটার বর্ষণ সিলেটে আবারও বন্যার শঙ্কা, প্রস্তুত ৫৫১ আশ্রয় কেন্দ্র সিলেটে ২২ দিনে ১৫ কোটি টাকার সাদা পাথর লুট সিলেটসহ ছয় অঞ্চলে ৬০ কি.মি বেগে ঝড় হতে পারে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য সাড়ে ১১ হাজার কোটি টাকার বাজেট অনুমোদন সিলেটে অবিবাহিত পুরুষের হার সবচেয়ে বেশি সিলেট ওসমানী হাসপাতাল ‘কক্লিয়ার ইমপ্লান্ট’ কার্যক্রমে শতভাগ সফলতা অর্জন বিয়ানীবাজারে পুলিশের অভিযানে ৮০ বস্তা চিনি সহ গ্রেফতার ২ সিলেট এসে হঠাৎ অসুস্থ সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী, হেলিকপ্টারে ঢাকায় নেওয়া হয়েছে সিলেটে এসএসসির খাতা চ্যালেঞ্জ করে ফেল থেকে পাস করলেন ৩৫ শিক্ষার্থী সিলেটে বিপুল পরিমান চোরাই মোবাইলসহ গ্রেফতার ৬ সৌদিতে হজে গিয়ে ১৫ বাংলাদেশির মৃত্যু টিলাধসে স্বপরিবারে যুবদল নেতার মৃত্যুতে সিলেট যুবদলের শোক টিকটকার প্রিন্স মামুন গ্রেফতার মসজিদে আজানরত অবস্থায় এক মুসল্লির মৃত্যু




প্রেমিক-প্রেমিকাকে ৭০ বছর পর ফেসবুক মিলিয়ে দিল

FB IMG 1685387647525 - BD Sylhet News




বিডি সিলেট ডেস্ক:: প্রেমের শুরুটা হয়েছিল যুদ্ধের আবহে। বোমা আর বারুদের গন্ধ গায়ে মেখেই একসঙ্গে ঘর বাঁধার স্বপ্ন দেখেছিলেন। কিন্তু মানুষ ভাবে এক, আর নিয়তিতে বাঁধা আরেক। দুয়ানে মান এবং পেগি ইয়ামাগুচি তার অন্যতম উদাহরণ হতে পারেন।

১৯৫৩ সালে ২২ বছর বয়সি দুয়ানে কোরিয়ান যুদ্ধে যোগ দিতে জাপানে গিয়েছিলেন। সেখানেই তার সঙ্গে আলাপ পেগির সঙ্গে। দেখেই পেগির প্রেমে পড়ে যান দুয়ানে। ভিনদেশে যুদ্ধ করতে এসে প্রেম প্রস্তাব দিয়ে বসেন অচেনা মেয়েকে।

দুয়ানের প্রস্তাবে সাড়া দিতে দেরি করেননি পেগিও। প্রেমের সম্পর্ক শুরু হয় সেখান থেকেই। সম্পর্কের বয়স যখন মাস ছয়েক, পেগি অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়েন। আর ঠিক সেই সময় টোকিওতে দুয়ানের থাকার মেয়াদ শেষ হয়। দুয়ানেকে দেশে ফিরে যেতে বলা হয়।

সেই পরিকল্পনা মাথায় রেখেই দেশে ফেরেন তিনি। কিন্তু এসে দেখলেন, বাবা তার সব অর্থ অন্যত্র খরচ করে ফেলেছেন। আর কিছুই অবশিষ্ট নেই। টাকা পয়সা ছাড়া পেগির সামনে গিয়ে দাঁড়াতে চাননি দুয়ানে। তাই বুকে পাথর চাপা দিয়ে হলেও পেগির সঙ্গে সব যোগাযোগ বন্ধ করে দেন। তবে অর্থনৈতিক ভাবে শক্তিশালী হতে দেশেই অন্য চাকরি নেন তিনি।

যোগাযোগ নিভে গেলেও পেগির জন্য দুয়ানের ভালোবাসা অটুট ছিল। পেগিকে এবং সন্তানের খবর নেয়ার চেষ্টাও করেছিলেন। কোনো খবর পাননি।শেষ পর্যন্ত কয়েক দশক পরে ফেসবুকের মাধ্যমে পেগিকে খুঁজে পেলেন ৯২ বয়সী দুয়ানে। এমনই এক সত্যি প্রেমের গল্প তুলে ধরেছে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম আনন্দবাজার।

বাদমাধ্যটির সেই প্রতিবেদনে বলা হয়, ফেসবুক ঘাঁটতে ঘাঁটতে পেগির প্রোফাইলটি চোখে পড়ে। দুয়ানে নিজের পরিচয় দিয়ে মেসেজ করেন। এক সপ্তাহ পরে উত্তর আসে। অনেক বছর পর কথা হয় দুজনের। দুয়ানেকে দেখতে তাদের ছেলেকে সঙ্গে নিয়ে চলে আসেন বৃদ্ধা পেগি। এত বছর পর ফের কাছাকাছি আসে দুই মন। দুয়ানে এবং পেগি দুজনেই বলেছেন, ‘‘যে ক’দিন বাঁচব, একসঙ্গে হাতে হাত রেখে থাকতে চাই।’’

শেয়ার করুন...











বিডি সিলেট নিউজ মিডিয়া গ্রুপ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। © ২০২৪
Design & Developed BY Cloud Service BD