রবিবার, ২৯ নভেম্বর ২০২০, ১০:৩৫ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম ::
১৭ দিনের নবজাতককে হ’ত্যার কথা স্বীকার করলেন পাষন্ড মা! মসজিদে প্রেমিকা নিয়ে জনতার হাতে আটক ইমাম,উদ্ধার করেছে পুলিশ বিশ্বনাথের অসুস্থ তুহিদ মিয়ার চিকিৎসার জন্য অর্ধলক্ষ টাকা হস্তান্তর ডা. শিপলুর সাথে জয়বাংলা সাহিত্য ও সংস্কৃতি পরিষদ নেতৃবৃন্দের সাক্ষাত সিলেট কারাগারে বিদেশী কয়েদীদের জন্য রেডক্রিসেন্টের জিনিসপত্র প্রদান পররাষ্ট্রমন্ত্রীর রোগমুক্তি কামনা করে সিলেট জেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগ মিলাদ ও দোয়া হিরো আলম গাইলেন ‘বাবু খাইছো’, প্রস্তুতি নিচ্ছেন অ্যালবামের আলোকিত নন্দিরগাঁও ট্রাস্টের আহ্বায়ক কমিটি গঠন নগরীর নয়াসড়ক জামে মসজিদের মুতাওয়াল্লি আব্দুল মালিক রাজা আর নেই এপেক্স ক্লাব অব বাংলাদেশ জেলা-৪ এর বোড সভা অনুষ্ঠিত আ.লীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক নাদেলের বাসায় দুর্ধর্ষ চুরি গ্রেফতার-ওয়া‌রেন্ট সংক্রা‌ন্ত কো‌নো বার্তা‌ দেন‌নি আইজিপি বড়লেখায় লেখক সাংবাদিকদের নিয়ে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হুমায়ুন রশিদ চৌধুরীর কবর জিয়ারত করলেন প্রধানমন্ত্রীর প্রটোকল অফিসার আবু জাফর রাজু আ.লীগ ক্ষমতায় থাকলে দেশের উন্নয়ন হয়– মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী এমপি
cloudservicebd.com

ছাতকের গোবিন্দগঞ্জে ডিবি পুলিশের অভিযানে ভারতীয় মদসহ ফকির হাসান ফের গ্রেফতার

20200623 232549 - BD Sylhet News

ছাতক প্রতিনিধি:: সুনামগঞ্জের ছাতকে ডিবি পুলিশের অভিযানে ফকির মোহাম্মদ হাসান নামে অনলাইন নিউজ পোর্টালের এক সম্পাদককে ৩ বোতল ভারতীয় অফিসার্স চয়েজ মদসহ গ্রেফতার করা হয়েছে। মঙ্গলবার সকালে সুনামগঞ্জ ডিবি পুলিশের এস আই উস্তার, এস আই মো. আলিম উদ্দিন ও সঙ্গীয় ফোর্স উপজেলার গোবিন্দগঞ্জ পয়েন্ট থেকে মাদক সেবন অবস্থায় ৩ বোতল ভারতীয় অফিসার্স চয়েজ মদসহ তাকে গ্রেফতার করে ছাতক থানায় হস্তান্তর করা হয়। দুপুরে ডিবি পুলিশ বাদি হয়ে ২০১৮ সালের মাদক নিয়ন্ত্রন আইনের ৩৬(১) স্মরনী ২৫ ততসহ ২৫বি ধারায় এ মামলাটি দায়ের করা হয়। যার মামলা নং-২১,তারিখ ২৩/০৬/২০২০ইং।

গ্রেফতাকৃত ফকির মোহাম্মদ হাসান ছাতক উপজেলার সিংগুয়া গ্রামের শাহ মোঃ ফকির ওরফে কালার ছেলে। কিছুদিন পূর্বে একটি চুরির মামলায় জেল কেটে এক মাসের ভেতরে আবারো ৩ বোতল মদসহ গ্রেফতার হলো।

ছাতক থানা পুলিশ সূত্রে জানা যায়, ফকির মোহাম্মদ হাসানের বিরুদ্ধে ছাতক থানায় ৩টি ও জগন্নাথপুর থানা একটি মামলা রয়েছে। তার বিরুদ্ধে জগন্নাথপুর থানায় ২০১২ সালের ১ ফেব্রুয়ারী ৪৫৭/৩৮২/৫০৬ ধারায় মামলা দায়ের করা হয়। যার মামলা নং-০৩ ,ছাতক থানায় ২০১৯ সালের ২৩ ফেব্রুয়ারী ১৯৭৪ সালের ধারার বিশেষ ক্ষমতা আইনে মামলা। যার মামলা নং-২২। চলতি বছরের ২৮ মে ২০১৮ সালের মাদক নিয়ন্ত্রন আইনের ৩৬(১) ধারার ২৫, ছাতক থানায় মামলা নং-২১ এবং মঙ্গলবার সন্ধ্যা ডিবি পুলিশ বাদি হয়ে ছাতক থানায় মাকদদ্রব্য নিয়ন্ত্রন আইনে আরো একটি মামলা দায়ের করা হয়। যার মামলা নং -২১। ফকির মোহাম্মদ হাসান নিজেকে একজন অনলাইন নিউজ পোার্টলের সম্পাদক পরিচয় দিয়ে বিভিন্ন সময় বিভিন্ন জায়গাতে চাদাঁবাজি, মাদক সেবন ও বিক্রি করে আসছিল বলে জানা গেছে। সে সহজ সরল মানুষজনের দূর্বলতার সুযোগ খোঁজে ব্লেকমেইল করে হাতিয়ে নিত মোটা অংকের টাকা এমন অভিযোগ রয়েছে তার বিরুদ্ধে।

এ ব্যাপারে সুনামগঞ্জ জেলা গোয়েন্দা পুলিশের ওসি কাজী মোক্তাদির হোসেন গ্রেফতারের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

ছাতক থানার অফিসার ইনচার্জ মো. মোস্তফা কামাল জানান, মাদকদ্রুব্য সেবন ও বিক্রি আইনগত দন্ডনীয় অপরাধ। তাই সুনামগঞ্জের সুযোগ্য পুলিশ সুপারের নির্দেশে মাদক সেবন ও বিক্রিতে পুলিশ জিরো ট্রলারেন্স বলে উল্লেখ করেন। এই সমস্ত অপরাধ দমনে ছাতক থানা পুলিশের অভিযান অব্যাহত থাকবে ও তিনি জানান।

শেয়ার করুন...
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  


বিডি সিলেট নিউজ মিডিয়া গ্রুপ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। © ২০১৭ - ২০২০
Design & Developed BY Cloud Service BD