রবিবার, ২৮ নভেম্বর ২০২১, ০২:৩০ অপরাহ্ন

শিরোনাম ::
সিলেটে ফিজিওথেরাপির আড়ালে দেহ ব্যবসা!  ভোটকেন্দ্রে সহিংসতার উদ্দেশে জড়ো, অস্ত্রসহ ৩১ যুবক আটক সাঁতার কেটে সিলেটে এসে ধরা পড়লো ভারতীয় নাগরিক বাংলাদেশের নারীরা সারাবিশ্বে নিজেদের যোগ্যতার পরিচয় দিচ্ছে : পররাষ্ট্রমন্ত্রী দেখা করতে এসে ধরা, কোটি টাকার কাবিনে সমাধান কাশি থেকে রোগ নির্ণয় করবেন যেভাবে বিদেশিদের জন্য ওমরাহ পালনে যে নতুন নিয়ম পরকীয়া ঠেকাতে স্ত্রী অদল-বদল করা হয় যেখানে যুক্তরাজ্যে ঝড়ে গাছ পড়ে দুজনের মৃত্যু তৃতীয় ধাপের এক হাজার ইউপিতে ভোট গ্রহণ আজ ‘আটক হেফাজত নেতাদের মুক্তি আমাদের হাতে নেই, বিচার বিভাগের হাতে’ আমি টাকা পাচার করি না, কারা করে কীভাবে জানব : অর্থমন্ত্রী ইউপি নির্বাচনে দায়িত্ব পালনে এসএমপির ব্রিফিং প্যারেড সরকার কৃষিখাতে ভর্তুকি দেওয়ায় কৃষি উৎপাদন বৃদ্ধি পেয়েছে : এমপি হাবিব দোয়ারায় বসতঘরে অগ্নিকাণ্ড, দুই লক্ষাধিক টাকার ক্ষয়ক্ষতি
cloudservicebd.com

স্বামীকে অচেতন করে পরকীয়া প্রেমিকের সঙ্গে পালালেন স্ত্রী

Screenshot 20211020 223655 Facebook - BD Sylhet News

বিডি সিলেট ডেস্কঃ

সিলেট থেকে স্পেনে গিয়েই স্বামীকে শরবতের সাথে চেতনানাশক খাইয়ে এক প্রবাসীর স্ত্রী (২৫) পালিয়ে যাওয়ার ঘটনা ঘটেছে।

জানা গেছে, গত ১০ অক্টোবর রাতে স্পেনের পর্যটন নগরী বার্সেলোনায় এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় স্থানীয় পুলিশ স্টেশনে ভুক্তভোগী স্বামী মিনহাজুল ইসলাম মুক্তা পালিয়ে যাওয়া স্ত্রী মুনিরা খানম মুন্নীর বিরুদ্ধে একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন।

বার্সেলোনার স্থানীয় একটি হলে সংবাদ সম্মেলনে এ বিষয়ে বিস্তারিত জানান ভুক্তভোগী স্বামী মিনহাজুল ইসলাম মুক্তা। মিনহাজ বিয়ানীবাজার উপজেলার কুড়ারবাজার ইউনিয়নের আঙ্গুরা মোহাম্মদপুর গ্রামের নজরুল ইলামের ছেলে। তিনি বিয়ানীবাজারের খাসা শহীদ টিলা এলাকায় বিয়ে করেন।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে মিনহাজুল ইসলাম মুক্তা বলেন, গত ১০ অক্টোবর তারিখে ফ্যামিলি ভিসার মাধ্যমে স্ত্রী মুন্নী এবং ২ বছরের শিশু সন্তান আয়ানকে স্পেনের বার্সেলোনায় নিয়ে আসেন তিনি। সন্তানসহ স্ত্রী বার্সেলোনায় আসার রাতেই তাকে শরবতের সাথে চেতনানাশক খাইয়ে পূর্বপরিকল্পনা অনুযায়ী সবার অগোচরে ফ্রান্স প্রবাসী পরকীয়া প্রেমিকের সাথে পালিয়ে যান মুন্নী। সাথে করে সন্তানকেও নিয়ে যান। এ সময় দেশ থেকে নিয়ে আসা স্বর্ণালঙ্কার, নগদ ইউরোসহ মূল্যবান মালামাল সঙ্গে নিয়ে গেছেন তিনি।

মুনিরা খানম মুন্নীকে ‘ভয়ংকর প্রতারক’ উল্লেখ করে সংবাদ সম্মেলনে মিনহাজ আরও বলেন, এ সমস্যা পারিবারিকভাবে নিষ্পত্তির জন্য তিনি তার শ্বশুর বিয়ানীবাজারের খাসা শহীদ টিলার ইকবাল খানের দ্বারস্থ হওয়ার পরও কোন সুষ্ঠু সমাধান পাননি। আর এ জন্যে তিনি সংবাদ সম্মেলন করে কমিউনিটি নেতৃবৃন্দের শরণাপন্ন হয়েছেন।

মিনহাজ জানান, বিয়ে পরবর্তী স্পেনে নিয়ে আসা পর্যন্ত স্ত্রীর পিছনে তার প্রায় ৪০ হাজার ইউরো বা বাংলাদেশি টাকায় প্রায় ৪০ লক্ষ টাকা ব্যয় হয়েছে। তিনি এ ঘটনার সুষ্ঠু বিচারের জন্য স্থানীয় প্রশাসনে অভিযোগসহ আইনি প্রক্রিয়া শুরু করেছেন।

উপস্থিত সাংবাদিকের এক প্রশ্নের উত্তরে ভুক্তভোগী মিনহাজ বলেন, তিনি ধারণা করছেন মুন্নী তার সাথে প্রতারণার আশ্রয় নিয়ে যে পরকীয়া প্রেমিকের হাত ধরে পালিয়েছে সে ফ্রান্স প্রবাসী ও বিয়ানীবাজারের বাসিন্দা। এ ধরনের লজ্জার ও প্রতারণার ঘটনা যাতে ভবিষ্যতে আর কারও সাথে না ঘটে সেজন্য সকলকে সচেতন থাকার অনুরোধ করেন তিনি। এছাড়া তার দুই বছরের সন্তান আয়ানকে তার কাছে ফিরিয়ে নিয়ে আসতে সকলের সহযোগিতা কামনা করেন।

শেয়ার করুন...
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  


বিডি সিলেট নিউজ মিডিয়া গ্রুপ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। © ২০২১
Design & Developed BY Cloud Service BD