রবিবার, ২৮ নভেম্বর ২০২১, ০৩:৩৫ অপরাহ্ন

শিরোনাম ::
পাথরবোঝাই লরির সঙ্গে শববাহী ট্রাকের সংঘর্ষ, নিহত ১৮ ঢাকায় বিনিয়োগ শীর্ষ সম্মেলন উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী সিলেটে ফিজিওথেরাপির আড়ালে দেহ ব্যবসা!  ভোটকেন্দ্রে সহিংসতার উদ্দেশে জড়ো, অস্ত্রসহ ৩১ যুবক আটক সাঁতার কেটে সিলেটে এসে ধরা পড়লো ভারতীয় নাগরিক বাংলাদেশের নারীরা সারাবিশ্বে নিজেদের যোগ্যতার পরিচয় দিচ্ছে : পররাষ্ট্রমন্ত্রী দেখা করতে এসে ধরা, কোটি টাকার কাবিনে সমাধান কাশি থেকে রোগ নির্ণয় করবেন যেভাবে বিদেশিদের জন্য ওমরাহ পালনে যে নতুন নিয়ম পরকীয়া ঠেকাতে স্ত্রী অদল-বদল করা হয় যেখানে যুক্তরাজ্যে ঝড়ে গাছ পড়ে দুজনের মৃত্যু তৃতীয় ধাপের এক হাজার ইউপিতে ভোট গ্রহণ আজ ‘আটক হেফাজত নেতাদের মুক্তি আমাদের হাতে নেই, বিচার বিভাগের হাতে’ আমি টাকা পাচার করি না, কারা করে কীভাবে জানব : অর্থমন্ত্রী ইউপি নির্বাচনে দায়িত্ব পালনে এসএমপির ব্রিফিং প্যারেড
cloudservicebd.com

১৪ দিন পর বাংলাদেশে দেখা যাচ্ছে ‘জি বাংলা’

zee bangla - BD Sylhet News

বিনোদন ডেস্ক :: টানা ১৪ দিন বন্ধ থাকার পর বাংলাদেশে সম্প্রচারে ফিরেছে ভারতের ‘জি বাংলা’ চ্যানেলটি। বিজ্ঞাপন ছাড়াই ‘জি বাংলা’ বাংলাদেশের দর্শকদের জন্য স্যাটেলাইটে আপলিংক করছে। সেখান থেকে এ দেশীয় কেব্‌ল অপারেটররা তা ডাউনলিংক করে যখন অনুষ্ঠান তখন প্রচার করছেন। ঢাকা ও বাইরের জেলাগুলো থেকে দর্শকেরা এখন জি বাংলা চ্যানেল দেখতে পাচ্ছেন বলে জানা গেছে।

বাংলাদেশে জি বাংলার পরিবেশক প্রতিষ্ঠানের একজন কর্মকর্তা জানিয়েছেন, অনুষ্ঠানের ফাঁকে বিজ্ঞাপনের সময়টিতে ওই চ্যানেলের অন্য অনুষ্ঠানের ‘প্রোমো’ দেখানো হচ্ছে।

কেব্‌ল অপারেটরস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (কোয়াব) সভাপতি এস এম আনোয়ার পারভেজ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, গতকাল শুক্রবার রাত থেকে জি বাংলা দেখতে পাচ্ছেন কেব্‌ল অপারেটরের গ্রাহক ও ডিটিএইচের দর্শকেরা।

তিনি বলেন, জি বাংলা কর্তৃপক্ষ নিজেরাই ক্লিন ফিড চ্যানেল দিচ্ছে। সেটি পরিবেশকেরা প্রচার করছে। পরীক্ষামূলক একটি চ্যানেলের মাধ্যমে ফিড ‘ক্লিন’ এনে প্রচার করা হচ্ছে। পর্যায়ক্রমে বন্ধ থাকা অন্য চ্যানেলগুলো সম্প্রচারে আসবে বলে আশা প্রকাশ করেন কেব্‌ল অপারেটরদের এই নেতা।

বাংলাদেশে জি নেটওয়ার্কের সব চ্যানেলের পরিবেশক মিডিয়া কেয়ার নামের একটি প্রতিষ্ঠান। তবে ওই প্রতিষ্ঠানের দায়িত্বশীল কর্মকর্তাদের কেউই এখনো বিষয়টি নিয়ে কথা বলতে রাজি নন।

২০০৬ সালের কেব্‌ল টেলিভিশন নেটওয়ার্ক পরিচালনা আইনের ১৯(১৩) ধারায় বলা হয়েছে, ‘বিদেশি কোনো চ্যানেলের মাধ্যমে বিজ্ঞাপন সম্প্রচার বা সঞ্চালন করা যাবে না।’

চ্যানেল সম্প্রচার বন্ধের পর পরিবেশকেরা বলেছিলেন, বাংলাদেশের বাজার ছোট। এ কারণে ক্লিন ফিড চ্যানেলের প্রচার করতে চান না ব্রডকাস্টাররা। আর পরিবেশক বা অপারেটররা বিজ্ঞাপনমুক্ত করে চ্যানেলের সম্প্রচার করবে, এই সক্ষমতাও তাদের নেই। এর মধ্যেই বিজ্ঞাপনমুক্ত হয়ে ‘জি বাংলা’ সম্প্রচারে আসায় অন্য চ্যানেলগুলো ক্লিন ফিড পাওয়ার বিষয়ে আশাবাদী কেব্‌ল অপারেটর ও পরিবেশকেরা।

তথ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, জি বাংলাসহ এখন বিবিসি, সিএনএন, আল–জাজিরা এইচডি, ডিডব্লিউ, কেবিএস ওয়ার্ল্ড, এআরআই র‌্যাংগ টিভি, এনএইচকে ওয়ার্ল্ড, সিজিটিএন, রাশিয়া টুডে, ফ্রান্স ২৪, লোটাস, ট্রাভেল এক্সপি এইচডি, আল কুরান, আল সুন্না, ট্রাভেল এক্সপি ও দূরদর্শন টেলিভিশন বাংলাদেশের দর্শকেরা দেখতে পাচ্ছেন। এর সবই ‘ক্লিন ফিড’ প্রচার হচ্ছে।

শেয়ার করুন...
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  


বিডি সিলেট নিউজ মিডিয়া গ্রুপ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। © ২০২১
Design & Developed BY Cloud Service BD