শুক্রবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৮:২৪ অপরাহ্ন

শিরোনাম ::
বিশেষ ট্রাইব্যুনালে মুনির তপন জুয়েল হত্যার বিচার দাবী পূর্ণিমার হাত-পা বাঁধা বিবস্ত্র লাশ উদ্ধার সন্তান কোলে নিয়েই শিক্ষার্থীদের পড়াচ্ছেন মা! ফেসবুকে প্রশংসায় ভাসছেন তিন শিক্ষক করোনা পজিটিভ, স্কুল বন্ধ ঘোষণা সাড়ে তিন হাজার মাদক কারবারি রয়েছে ঢাকায় গরু চুরি কেন্দ্র করে মাদাগাস্কারে সংঘর্ষে নিহত ৪৬ কোভিড একসময় সাধারণ ঠাণ্ডা-জ্বরে পরিণত হবে: সারাহ গিলবার্ট ভারতে আদালতকক্ষে গোলাগুলিতে নিহত ৪ অতিরিক্ত পুলিশ সুপার পদে ৮ কর্মকর্তার পদায়ন বালাগঞ্জে কামরুল হত্যা মামলার পলাতক দুই আসামি ঢাকা থেকে গ্রেফতার মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বের প্রশংসা জাতিসংঘ মহাসচিবের দোয়ারাবাজারের মাদ্রাসা ছাত্র নিখোঁজ ছাতকে ছুরিকাঘাতে গুরুতর আহত শিক্ষক হাসপাতালে ভর্তি: উপ‌জেলা জুড়ে নিন্দার ঝড় জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের অধিবেশনে আজ ভাষণ দেবেন প্রধানমন্ত্রী  যে নামাজে সব গুনাহ মাফ হয়ে যায়
cloudservicebd.com

স্বামীকে খুন করলেন নিজেই, সংবাদ সম্মেলনে চাইলেন বিচার

Screenshot 20210826 112131 Facebook - BD Sylhet News

বিডি সিলেট ডেস্কঃ

প্রায় পাঁচ মাস আগে (২৭ মার্চ) নিজ কক্ষে এক ক্যাবল ব্যবসায়ীকে কুপিয়ে হত্যা করে পালিয়ে যায় দুর্বৃত্তরা। হত্যার পরদিনই ‘পরকীয়া প্রেমিক’র সঙ্গে মিলে স্বামী হত্যার পর বিচারের দাবিতে সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করেছিলেন স্ত্রী। সেখানে স্বামীকে হত্যার ঘটনায় জড়িতদের গ্রেফতার ও বিচারের দাবিতে কান্নায় ভেঙেও পড়তে দেখা যায় তাকে। তবে হত্যাকাণ্ডের প্রায় পাঁচ মাস পর এর রহস্য ভেদ করেছে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)। সংস্থাটি জানিয়েছে, নিহতের স্ত্রী ও তার প্রেমিক মিলে এ হত্যাকাণ্ড ঘটিয়েছে। বুধবার (২৫ আগস্ট) পিবিআই-এর উপপরিদর্শক (এসআই) সালেহ ইমরান বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

ওই ক্যাবল ব্যবসায়ীর নাম ইলিম সরকার (৪২)। তিনি আশুলিয়ার কাঠগড়া এলাকার ফজল সরকারের ছেলে ও মহল্লায় ক্যাবল ব্যবসা করতেন। এ ঘটনায় নিহতের বাবা হত্যাকাণ্ডের পরদিন আশুলিয়া থানায় অজ্ঞাতদের আসামি করে একটি মামলা দায়ের করেন।

এ মামলায় সোমবার (২৩ আগস্ট) রাতে আশুলিয়া থেকে স্ত্রী ক্যামেলি বেগম ও প্রেমিক পিন্টুকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতার দুইজনকে আজ আদালতে পাঠালে তারা হত্যাকাণ্ডের কথা স্বীকার করেন। পরে আদালত তাদেরকে কারাগারে পাঠায়। এছাড়াও ঘটনায় জড়িত বাকিদের গ্রেফতারের অভিযান চলছে বলেও জানান পিবিআই-এর এসআই সালেহ ইমরান।

পিবিআই সূত্র জানায়, ইলিম-ক্যামেলি ১৪ বছর আগে প্রেম করে বিয়ে করেছিলেন। তাদের ১০ বছরের একটি ছেলে ও সাত বছরের একটি কন্যা সন্তান রয়েছে। এদিকে ২০১৯ সালে বিদ্যুতের মিটার লাগানোর সুবাদে ক্যামেলির সঙ্গে পিন্টুর পরিচয় হয়। এরপর থেকেই তাদের মধ্যে পরকীয়া প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। তবে ক্যামেলির স্বামী বিষয়টি জেনে গেলে তাদের মধ্যে পারিবারিক কলহ শুরু হয়। এক পর্যায়ে ইলিম সরকার বিষয়টি পরিবারের কাছে প্রকাশ করার হুমকিও দেন। এতে স্বামীকে হত্যার পরিকল্পনা করেন স্ত্রী। পরে পরিকল্পনা অনুযায়ী ২৭ মার্চ রাতে খাবারের সঙ্গে ঘুমের ওষুধ মিশিয়ে দেন। সকালে প্রেমিক পিন্টুসহ কয়েকজন ভাড়াটে খুনি ভেতরে প্রবেশ তাকে কুপিয়ে হত্যা করে। এ সময় কক্ষের দরজায় পাহারায় ছিলেন নিহতের স্ত্রী।

এদিকে, ঘটনাটি ভিন্নখাতে নেওয়ার জন্য ক্যাবল ব্যবসা নিয়ে কোন্দলের যেরে এই হত্যাকাণ্ড হয়েছে বলে প্রচারণা করতে থাকেন ক্যামেলি বেগম। এমনকি ২৮ নিজেই সংবাদ সম্মেলন ডেকে বিচারের দাবি জানান। সূত্র -বাংলা ট্রিবিউন

 

 

শেয়ার করুন...
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  


বিডি সিলেট নিউজ মিডিয়া গ্রুপ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। © ২০২১
Design & Developed BY Cloud Service BD