বৃহস্পতিবার, ১৫ এপ্রিল ২০২১, ০২:২৮ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম ::
৮৬ বছর পর আয়া সোফিয়া মসজিদে তারাবি নামাজ ইবাদত বন্দেগি করেই রমজানের প্রথম দিন কাটিয়েছেন বেগম খালেদা জিয়া সাবেক আইনমন্ত্রী আব্দুল মতিন খসরু এর মৃত্যুতে পরিবেশমন্ত্রীর শোক বড়লেখায় সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত আব্দুল বাছিতের পরিবারের পাশে নিসচা মুভমেন্ট পাস” অ্যাপ চালু করার ৩২ ঘণ্টার মধ্যে প্রায় পৌনে ৮ কোটি নক শাবির ল্যাবে ৫৭ জনের করোনা শনাক্ত আব্দুল মতিন খসরুর মৃত্যুতে প্রধানমন্ত্রীসহ বিভিন্ন নেতৃবৃন্দের শোক আব্দুল মতিন খসরুর মৃত্যুতে সাবেক শিক্ষামন্ত্রী’র শোক প্রকাশ সিলেটে রোজাদারদের মধ্যে মহানগর যুবলীগের ইফতার বিতরণ এডভোকেট আব্দুল মতিন খসরু আর নেই রায়হানের পরিবারকে রমজান ও নববর্ষের উপহার পাঠালেন এসএমপি কমিশনার মুরগির খাঁচায় করে বাড়ি ফিরছে মানুষ ‘বিদেশগামীদের জন্য শিগগিরই বিশেষ ফ্লাইট’ “মুভমেন্ট পাস” অ্যাপে মাত্র ২৬ ঘণ্টায় প্রায় পৌনে ৩ কোটি নক পুলিশের সব ইউনিটকে কঠোর নির্দেশনা
cloudservicebd.com

শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলার তারিখ পেছাতে পারে: শিক্ষামন্ত্রী

20210312 184309 - BD Sylhet News

বিডি সিলেট নিউজ ডেস্কঃ শিক্ষামন্ত্রী ডা. দিপু মনি বলেছেন, করোনা সংক্রমণ বাড়তে থাকলে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলার তারিখ পেছাতে পারে। এ বিষয়টি আমরা পর্যবেক্ষণ করছি।

শুক্রবার (১২ মার্চ) বিকালে মাতৃভাষা ইনস্টিটিউটে মুজিববর্ষ উপলক্ষে আয়োজিত ব্রিফিং শেষে তিনি এ কথা জানান।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, শিক্ষার্থী, শিক্ষক, অভিভাবকদের নিরাপত্তা আগে। করোনা সংক্রমণ উর্ধ্বগতি থাকলে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলার সিদ্ধান্তের তারিখ পেছাতে পারে।

এর আগে ২৭ ফেব্রুয়ারি শিক্ষামন্ত্রী আন্তঃমন্ত্রণালয় বৈঠকে জানিয়েছেন আগামী ৩০ মার্চ দেশের সব স্কুল-কলেজ খুলে দেওয়া হবে।

এদিন তিনি বলেন, দেশের সব পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে শ্রেণিকক্ষে পাঠদান ২৪ মে থেকে শুরু হবে এবং হল খুলবে ১৭ মে। এর আগে সব ধরনের পাঠদান ও পরীক্ষা বন্ধ থাকবে। ১৭ মে এর আগে বিশ্ববিদ্যালয়ের সব আবাসিক শিক্ষার্থী, শিক্ষক ও কর্মচারীদের করোনা টিকা দেওয়া হবে। এছাড়া বিসিএস পরীক্ষার আবেদন ও পরীক্ষার তারিখ বিশ্ববিদ্যালয় খোলার সঙ্গে সঙ্গতি রেখে নির্ধারণ করা হবে।

গত বছরের ১৭ মার্চ থেকে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রয়েছে। কয়েক ধাপে বাড়ানোর পর ২৮ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত ছুটি ঘোষণা করা হয়। গত ২২ জানুয়ারি করোনা পরিস্থিতিতে স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত করে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলতে গাইডলাইন প্রকাশ করে মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদফতর। এ গাইডলাইন অনুসরণ করে সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার প্রস্তুতি নিতে বলা হয়। স্কুল-কলেজগুলোতে ৩৯ পাতার গাইডলাইন পাঠিয়ে বলা হয়, ৪ ফেব্রুয়ারির মধ্যে স্কুলগুলো প্রস্তুত করে রাখতে, যাতে যে কোনো মুহূর্তে সেগুলো খুলে দেয়া যেতে পারে।

উল্লেখ্য, করোনাভাইরাস পরিস্থিতির কারণে গোটা বিশ্বকে নানা চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা করতে হচ্ছে। প্রাকৃতিক বিপর্যয়ের এই প্রতিকূল স্রোতের মুখোমুখি বাংলাদেশও। অর্থনৈতিক চ্যালেঞ্জের মতো বাংলাদেশের জন্য আরেকটি বড় চ্যালেঞ্জ হয়ে দাঁড়িয়েছে শিক্ষা খাত। প্রায় ১২ মাস ধরে সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ। কিছু ক্ষেত্রে অনলাইনে কার্যক্রম চলমান।

শেয়ার করুন...
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  


বিডি সিলেট নিউজ মিডিয়া গ্রুপ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। © ২০২১
Design & Developed BY Cloud Service BD